ঘুমানোর দোয়া বাংলা অর্থসহ

ইসলামিক

শারীরিক এবং মানসিক ভাবে সুস্থ থাকার জন্য ঘুম গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। আর ঘুমের গুরুত্বপূর্ণ বিষয়টি স্বচ্ছ ভাবে জানার জন্য এই কনটেন্টটিতে ঘুমানোর দোয়া বাংলা অর্থসহ,  ঘুম থেকে উঠার দোয়া এবং ঘুম সম্পর্কে কুরআনের আয়াত উপস্থাপন করা হয়েছে।

image

পেজ সূচিপত্র: ঘুমানোর দোয়া বাংলা অর্থসহ - ঘুম থেকে উঠার দোয়া / (কোরআন এবং হাদিসের আলোকে আলোচনা)

ঘুমানোর দোয়া বাংলা অর্থসহ

‏ اَللَّهُمَّ بِاسْمِكَ أَمُوتُ وَأَحْيَا

উচ্চারণ- আল্লাহুম্মা বিসমিকা আমুতু ওয়া আহইয়া।

অর্থ : ‘হে আল্লাহ! আপনারই নামে মরে যাই আবার আপনারই নামে জীবন লাভ করি।

আরো পড়ুন: সকল রোগ থেকে মুক্তির দোয়া

ঘুমানোর দোয়া বাংলা অর্থসহ দেওয়া হয়েছে এতে আপনাদের আরবি শব্দের অর্থ বুঝতে সুবিধা হবে। আমরা যদি অর্থ না বুঝি তাহলে ভাষাগুলো অনেকটাই চাইনিজ ভাষার মতো লাগে, 😄😄😄

ঘুম থেকে উঠার দোয়া

الْحَمْدُ لِلَّهِ الَّذِي أَحْيَانَا بَعْدَ مَا أَمَاتَنَا وَإِلَيْهِ النُّشُورُ

উচ্চারণ- ‘আলহামদু লিল্লাহিল লাজি আহইয়ানা বা’দা মা আমাতানা ওয়া ইলাইহিন নুশুর।

অর্থ : ‘সব প্রশংসা ওই আল্লাহর জন্য, যিনি মৃত্যুর পর আমাদের জীবন দান করেছেন এবং তার দিকেই আমাদের পুনরুত্থান।

আল্লাহ তায়ালা এই ছোট্ট দুটি দোয়া আমল করার তৌফিক দান করুন, (আমীন)। আল্লাহ তাআলার কাছে সে আমলটি বেশি পছন্দনীয় যদিও সেটি ছোট কিংবা বড় যাই হোক। সেই আমলটা যদি নিয়মিত হয়।

আরো পড়ুন: মুমিন কাকে বলে ঈমানের ফল কি

আলহামদুলিল্লাহ, এতক্ষণে আমরা ঘুম থেকে উঠার দোয়া এবং ঘুমানোর দোয়া বাংলা অর্থসহ জেনে গেছি। এবার আল্লাহ তায়ালা ঘুম সম্পর্কে আমাদের কি বলছেন? আল কুরআন থেকে কিছু আয়াত জানানোর চেষ্টা করব ইনশাআল্লাহ।

আল্লাহ তাআলা ঘুম সম্পর্কে কি বলেছেন?

যিনি আমাদের মালিক, আমাদের কল্যাণের জন্য মহাগ্রন্থ আল কুরআন পাঠিয়েছেন। যাতে বিন্দু পরিমাণ সন্দেহের কোন অবকাশ নেই। সেই আল কুরআন থেকে ঘুম সম্পর্কে কিছু গুরুত্বপূর্ণ আয়াত আপনাদের কাছে উপস্থাপন করা হয়েছে।

আশা করা যাই আপনারা এই আয়াতগুলো অর্থসহ বুঝে বুঝে পড়লে ঘুম সহ আরো অনেক কিছু জানতে পারবেন ইনশাআল্লাহ।

পবিত্র কোরআনের সূরা ৩০, আর-রুম, আয়াত নং ২৩, রুকু নং৩, পারা নং ২১ আল্লাহ তাআলা বলেন;

وَمِنۡ اٰيٰتِهٖ مَنَامُكُمۡ بِالَّيۡلِ وَالنَّهَارِ وَابۡتِغَآؤُكُمۡ مِّنۡ فَضۡلِهٖ​ؕ اِنَّ فِىۡ ذٰلِكَ لَاٰيٰتٍ لِّقَوۡمٍ يَّسۡمَعُوۡنَ‏ ٢٣

অর্থ: তাঁর নিদর্শনের মধ্যে হল রাতে ও দিনে তোমাদের ঘুম এবং তোমাদের (দ্বারা) তাঁর অনুগ্রহ তালাশ করা। মনোযোগী লোকেদের জন্য অবশ্যই এতে আছে অনেক নিদর্শন।

আরো পড়ুন: সূরা ফাতিহা শানে নুযুল - সূরা ফাতিহার ফজিলত ও আমল

আল্লাহ তাআলা আরো বলেন; সূরা ৭৮, নাবা, আয়াত নং ৯-১২, রুকু নং১, পারা নং ৩০ আল্লাহ তাআলা বলেন;

وَّجَعَلۡنَا نَوۡمَكُمۡ سُبَاتًا ۙ‏ ٩

অর্থ: আর তোমাদের নিদ্রাকে করেছি বিশ্রামদায়ী।

وَّجَعَلۡنَا الَّيۡلَ لِبَاسًا ۙ‏ ١٠

অর্থ: রাতকে করেছি আবরণ,

وَّجَعَلۡنَا النَّهَارَ مَعَاشًا‏ ١١

অর্থ: আর দিনকে করেছি জীবিকা সংগ্রহের মাধ্যম।

وَّبَنَيۡنَا فَوۡقَكُمۡ سَبۡعًا شِدَادًا ۙ‏ ١٢

অর্থ: আর তোমাদের উর্ধ্বদেশে বানিয়েছি সাতটি সুদৃঢ় আকাশ।

আলহামদুলিল্লাহ, আমরা পবিত্র আল কোরআন থেকে সূরা আর-রুম এবং নাবা এই দুইটি সূরা থেকে কয়েকটি আয়াত এর অর্থ সহ অধ্যয়ন করার মাধ্যমে অল্প কিছু হলেও বুঝতে পেরেছি।

আপনারা চেষ্টা করবেন এই আয়াতগুলোর শানে নুযুল এবং তাফসির গুলো পড়ার এতে আপনার আরো ভালোভাবে এই আয়াত সম্পর্কে জানতে পারবেন।

শেষ কথা

আপনারা ঘুমানোর সময় ডান কাত হয়ে ঘুমাবেন এবং ঘুমানোর দোয়াটি পড়বে সাথে আরো কিছু আমল রয়েছে সেগুলো করতে পারেন, এবং ঘুম থেকে উঠে الْحَمْدُ لِلَّهِ الَّذِي أَحْيَانَا بَعْدَ مَا أَمَاتَنَا وَإِلَيْهِ النُّشُورُ পড়বেন। চেষ্টা করবে ঘুমানোর সময় ওযু করে ঘুমানো।

এক নজরে অনেক কিছু👉 এখানে ক্লিক করুন

ধন্যবাদ-Thanks

এই পোস্টটি পরিচিতদের সাথে শেয়ার করুন

পূর্বের পোস্ট দেখুন পরবর্তী পোস্ট দেখুন
এই পোস্টে এখনো কেউ মন্তব্য করে নি
মন্তব্য করতে এখানে ক্লিক করুন

আর আইটি ফার্মের নীতিমালা মেনে কমেন্ট করুন। প্রতিটি কমেন্ট রিভিউ করা হয়।

comment url